শপিং ব্যাগে প্রমোশন: অনলাইন শপ এর জন্য উপকারী

4012

 শপিং ব্যাগে প্রমোশন: অনলাইন শপিং এর জন্য উপকারী 

জাহাঙ্গীর আলম শোভন

শপিংব্যাগ দোকান সুপারস্টোর এর জন্য অপরিহার্য উপাদান। ই কমার্স বা অনলাইন ব্যবসায়ীদের জন্য আরো বেশী উপকারী ও পয়োজনীয়। কারণ গ্রাহক আশা করে যে বিক্রেতা পন্যটি একটি সুন্দর ব্যাগ দিয়ে পরিবেশন করবেন। তাছাড়া ব্যাগের গায়ে হাউসের নাম লোগে থাকে বিধায় একটি ভালো বিজ্ঞাপনও ও হয়। এখন ব্যাগতো করবেন। তাহলে কেমন ব্যাক করবেন। একটা কথা হলো আপনার ব্যাগ যতো ভালো হবে। বিজ্ঞাপনও ততো ভালো হবে। তাছাড়া আপনি যে পন্যটি বিক্রি করবেন তার দাম সাইজ ওজন এসব বিবেচনায় রাখতে হবে। এই লেখায় 4 ধরনের ব্যাগ নিয়ে আলোচনা করা হলো।

কাগজের শপিং ব্যাগ, পলিথিন ব্যাগ , টিস্যু কাপড়ের ব্যাগ ও কােপড়ের ব্য্াগ

00000000000000000

কাগজের শপিং ব্যাগ:

রকমারী শপিং ব্যাগ: কাগজের শপিং ব্যাগের ক্ষেত্রে রকমের শেষ নেই। 10 টাকা থেকে শুরু করে 50 টাকা পর্যন্ত দামের হয়ে থাকে।

কিসের উপর ভিত্তি করে: কাগজের থিকনেস, কাগজের জিএসএম, কাগেজের মানের উপর নির্ভর করে ব্যাগের দাম ও মান ঠিক হয়। রয়েছে সাধারণ কাগজ, রয়েছে সিমেন্টর ব্যাগের মতো কেরেপ কাগজ, আর্ট কার্ড, দেশী বিদেশী, আর্ট পেপার, রিসাইকেল পেপার ইত্যাদি। 70 জিএসএম থেকে 300 জিএসএম পর্যন্ত মোটা।

আর ছাপার ক্ষেত্রে রয়েছে এক কালার, 2 কালার অথবা 4 কালার। রয়েছে সোনালী রুপালী ফয়েল প্রিন্ট।

লেমিনেশন এ আছে। প্লস্টিক বা গ্লসি লেমিনেশন। ম্যাট বা ফিট লেমিনেশন আছে স্পট বা মোম লেমিনেশন। আছে হিট বা মিক্স লেমিনেশন।

বাঁধাইতেও আছে বিভিন্ন অপশন। হাতল বা ফিতায় আছে নানা প্রকারভেদ।

সংখ্যা: কমপক্ষে 3 হাজার পিস ছাপলে ভালো। 5 হজার ছাপলে আরো ভালো। 2 হাজার ছাপলেও ওরা স্বচ্চন্দে অর্ডার নেবে। 1 হাজার পর্যন্ত ছাপলে আপনার খরচএকটু বেশী হবে। তবে পোষাবে। আর 500 বা তার কম হলে একটা ব্যয়বহুল হয়ে যাবে।

দরদাম:

১. সাধারণ ছাপা, সাধারণ কাগজ, নো লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 10 টাকা প্রতি পিস।

২. সাধারণ ছাপা, রিসাইকেল কাগজ, নো লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 8 টাকা প্রতি পিস।

  1. সাধারণ ছাপা, আর্ট কাগজ, নো লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 12 টাকা প্রতি পিস।
  2. সাধারণ ছাপা, আর্ট কার্ড নো লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 22 টাকা প্রতি পিস।
  3. সাধারণ ছাপা, সাধারণ কাগজ, স্পট লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 12 টাকা প্রতি পিস।
  4. সাধারণ ছাপা, রিসাইকেল কাগজ, ম্যাট লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 14 টাকা প্রতি পিস।
  5. সাধারণ ছাপা, আর্ট কাগজ, গ্লসি লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 15 টাকা প্রতি পিস।
  6. সাধারণ ছাপা, আর্ট কার্ড গ্লসি লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 24 টাকা প্রতি পিস।
  7. সাধারণ ছাপা, আর্ট কার্ড ম্যাট লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 28 টাকা প্রতি পিস।
  8. সাধারণ ছাপা, আর্ট কার্ড ম্যাট ও স্পট লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 30 টাকা প্রতি পিস।
  9. কালার ছাপা, সাধারণ কাগজ, স্পট লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 16 টাকা প্রতি পিস।
  10. কালার ছাপা, রিসাইকেল কাগজ, লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 12 টাকা প্রতি পিস।
  11. কালার ছাপা, আর্ট কাগজ, গ্লসি লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 15 টাকা প্রতি পিস।
  12. কালার ছাপা, আর্ট কার্ড গ্লসি লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 25 টাকা প্রতি পিস।
  13. কালার ছাপা, আর্ট কার্ড ম্যাট লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 30 টাকা প্রতি পিস।
  14. কালার ছাপা, আর্ট কার্ড ম্যাট ও স্পট লেমিনেশন সাধারণ ফিতা 32 টাকা প্রতি পিস।

খরচের ফিচারটা মোটামোটি এই রকম। 2 টাকা কমবেশী হতে পারে। তবে সেটা নির্ভর করছে আপনি কত পিস ছাপবেন। সেটার উপর।

টিস্যু কাপড়ের শপিং ব্যাগ।

এধরনের ব্যাগ আজকাল বেশ জনপ্রিয়। দেখতেও সুন্দর। এগুলো বিভিন্ন কালারের হয়ে থাকে। ছাপা সাধারণত স্ক্রিন প্রিন্টে হয়। এক বা 2 কালারে। এর বেশী কালার ব্যবহার করলে সমস্যা হয়। সাইজ অনসারে খরচ আসে। এবং টিস্যুর মানও দামের ক্ষেত্রে একটা ব্যাপার।

সাইজ অনুসারে প্রতিটি ব্লাঙক ব্যাগের দাম ছো সাইজ 5-8 টাকা, মাঝারী 10-15 টাকা। বড় ও শক্ত টিস্যু হলে আর একটু বেশী।

প্রিন্ট: প্রতিকালার প্রিণ্ট সাইজ অনুসারে প্রতিটি ব্যাগের জন্য 50 পয়সা থেকে শুরু 2 টাকা পর্যন্ত হতে পারে। দুই কালার হলে এই খরচ সরারি দ্বিগুন হবে।

পলিথিন ব্যাগ:

বাজারে যে পলিথিন ব্যাগ পাওয়া যায় সেটা। কম থিকনেসের এবং লাখ লাখ কপি একসাথে বানায় তাই দাম কম। কিন্তু আপনি নিজে ব্যাগ বানাতে গেলে হাজারো ঝামেলা। এই ব্যাগের পাইকারী বাজার হলো ঢাকা চকের স্পেশাল কয়েকটা গলি এগুলোর নাম বেগম বাজার ও মৌলভী বাজার। এখানে প্লাসিটক পাউন্ড হিসেবে কিনতে পা্ওয়া যায়। রোল পাওয়া যায়। ওজন দিয়ে পলিথিন কেনা যায়। শত হিসেবেও কিছু কিছু বিক্রি হয়।

আর আপনি যদি নিজে বানাতে চান সেক্ষেত্রে পাউন্ড হিসেবে পলিথিন বা রোল মানে পাইপ জাতীয় কিনতে পারেন। যার দুই দিক জোড়া লাগানো থাকে। সাইজমতো কেটে নিতে হয়। প্রয়োজনে হাতল সমান কাটা যায়। এক পাউন্ডে কয়টা পলিথিন হবে তা নির্ভর করছে পলিথিন এর সাইজ থিকনেস ও ওজনের উপর। বিভিন্ন কোয়ালিটির পলিথিন হতে পারে। আমার অভিজ্ঞতায় দেখেছি লোকাল কোয়ালিটি যত সহজে মেলে ভালো কোয়ালিটি তত সহজে মেলেনা। আর ওরা কথায় কথায় বলবে ভাই স্যাম্পল দেন। তাই এ ধরনের কাজ করাতে চাইলে আপনি প্রথমে একটি স্যাম্পল সংগ্রহ করতে পারেন। ভালো প্রতিষ্ঠানের ব্যাগ অথবা বিদেশী পলিথিন ব্যাগ স্যাম্পল হিসেবে সংগ্রহ রাখতে পারেন। আমার পছন্দের সবচে ভালো পলিথিন ব্যাগ হলো। বাজার কলকতা নামের কলকাতা নিউ মার্কেটের েএকটি সুপার শপের ব্যাগ। দেখতে যেমন সুন্দর তেমনি মজবুত। মজার ব্যাপার হলো এখানে শপিং করলেই এই ব্যাগ ফ্রি দেয়না। পয়সা দিয়ে কিনতে হয়। বড়ো সাইজ 5 রুপি ছোট সাইজ 3 রুপি। আমি ওখান থেকে শপিং করলে 3টাকা দিয়ে অনেকগুলো কিনে নিতাম।

যাই হোক এবার আসা যাক আপনি যদি প্রিন্ট করতে চান। যদি সাধারণ পিন্ট করাতে চান তা 1 কালারের হবে। দেখতে স্ক্রীণ প্রিন্ট মনে হলেও তা আসলে ব্লক প্রিন্ট। ব্লক বানাতে সাইজ অনসারে 2/1 হাজার টাকা লাগতে পারে। আর ছাপার খরচ সামান্যই। পাইপ রোল কিনে ছাপানো যায়। সাইজ কোয়ালিটি থিকনেস পছন্দ করে দিলে তারাই সব করে দেবে।

আজকাল প্লাসিটকে খুব সুন্দর মনোরম 4 কালরে ছাপা হয়। মেনটা চিপস এর ব্যাগ কিংবা মসলার ব্যাগে থাকে। এক্ষেত্রে পাউন্ড হিসেবে প্লাসিটক কিনতে হয়। সে প্লাসটিক নির্দিস্ট ফরম্যাটে রোল করে ছাপা হয়। রোলের খরচটা বেশী সাইজ অনুসারে প্রতিটিা রোল 4-10 হাজার টাকা হতে পারে। আর একটা কালারের জন্য একটা রোল। এখানে খরচটা বেড়ে যায়। সে অনুসারে ছাপার খরচ বেশী নয়। তবে এক্খেত্রে 20/25 হাজার হলে দাম অনেক কমে যায়। আর 5/10 হাজার পিস এর কম করলে পোসয়না।

দামলেখা ট্যাগ: চকবাজারের মৌলভী বাজার নামে একটা গলি আছে এখানে ট্যাগ মেশিন পাওয়া যায়। প্রথম দিকে দাম ১২/১৬শ থাকলেও এখন ৫-৭শ টাকায় পাওয়া যায়।

 

কাপড়ের ব্যাগ:

কাপড়ের ক্ষেত্রেও সাইজ  এবং মান গুরুত্বপূর্ণ। কাপড়ের গজ হিসেবে দাম পড়বে। সাথে থাকবে সেলাই খরচ। আর ছাপা স্ক্রিন পিন্টের অনুরুপ। এর একটা সবিধা হলো কাপড় কিনে ঘরের কাছের কাসেম ট্রেইলারকে দিয়ে মনের মতো করে সেলাই করে আপনার এলাকার কাছেই যেখানে স্কি্ণ প্রিন্ট হয় সেখান থেকে ্রিন্ট করে নিন। এটা আপনি কম সঙখ্যকও করতে পাারেন। খরচ মার্কিন কাপড়ে সবচে কম। ৭-২০ টাক হতে পারেল সাইজ ।নসারে। অন্যান্য কাপড়ে কাপড়ের কোয়ালিটি বুঝে।

যেসব পন্য প্যাকএ ধরেনা: যেসব পন্য প্যাক এ ধরেনা। তারা না লোগো সহ রা্পিংপেপার ছেপে নিতে পারেন। যাতে পেপার দিয়ে মুড়ে নেয়ার পর নাম লোগো েদেখা যায়।

 

 

Comments

comments

About The Author



Freelance Consultant, Writer and speaker . Jahangir Alam Shovon has been in Bangladeshi Business sector as a consultant, He has written near about 500 articles on e-commerce, tourism, folklore, social and economical development. He has finished his journey on foot from tetulia to teknaf in 46 days. Mr Shovon is social activist and trainer.

No Comments

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *