যে ৭টা ব্যাপার বিজনেস এ করবেন না

12136

শুধু মাত্র টাকার কথা চিন্তা করে বিজনেস করা

হেডিং দেখে একটু অবাক হতেই পারেন, বিজনেস করবেন কিন্তু টাকার কথা চিন্তা করা যাবে না? টাকার কথা অবশ্যই চিন্তা করবেন আপনি কোন দান কেন্দ্র খুলে বসেন নাই তবে শুধু টাকার কথা চিন্তা করে বিজনেস করলে সেটা ঠিক হবে না। প্রথমে মানুষের উপকার করার চেষ্টা করেন, মন জয় করার চেষ্টা করেন তারপর টাকা এমনি ই আসবে। পৃথিবীর সফল উদ্যোগতাদের দেখুন, বিল গেটস জুকারবারগকে ইত্যাদি ইত্যাদি তারা “টাকা চাই” বলে শুরু করেছিলো? তারা তাদের বিজনেস এর মাধ্যমে কিছু নতুন করার চেষ্টা করেছে, সেটার মধ্যে একটা অর্থ ছিলো। তাই শুধু টাকার কথা চিন্তা করে বিজনেস শুরু না করলেই ভালো।

নিখুত পরিকল্পনা করা

আপনি কি করতে চান তার নিখুত পরিকল্পনা করেন অনেক সময় নিয়ে,এটা করবো,ওরকম ভাবে করবো ইত্যাদি ইত্যাদি, তারপর বাস্তবে প্রয়োগ করতে গিয়ে দেখেন পরিকল্পনার সাথে বাস্তবতার কোন মিল নাই তখন হতাশ হয়ে পরেন। তাই ঘরে বসে নিখুত পরিকল্পনা করে খুব একটা লাভ হয় না, অল্প অল্প পরিকল্পনা করুন, সেটা বাস্তবে প্রয়োগ করুন, সেখানে ভুল হতে পারে সেটা থেকে শিক্ষাগ্রহণ করুন, বায়ার কি চায় যেটা আপনি করছেন না সেগুলি ভালো করে বুঝুন, আবার অল্প পরিকল্পনা করে কাজ শুরু করুন।

টাকা খরচ করবে কোথায়

অনেকেই বুঝে না টাকা কোথায় খরচ করবে? কয়েক লাখ টাকা আছে চিন্তা শুরু হয়ে যায় কিভাবে সেগুলা কাজে লাগানো যায়, আসলে শুধু টাকার মাধ্যমে বিজনেস হয় না,বিজনেস করতে আপনার ওয়েবসাইট এর দরকার নাই, আপনার অফিস এর দরকার নাই, আপনার গাড়ির দরকার নাই, আপনার দরকার আপনাকে, আপনার পরিশ্রমকে, আপনার সময়কে, বিজনেস এর জন্য আপনার টাকার দরকার নাই আপনার দরকার কাজের, আপনার কি পরিকল্পনা সে অনুযায়ী সাধারন মানুষের সাথে কথা বলেন, দেখেন সাধারন মানুষ কি চায় কেমন ভাবে চায়।

একা একা সব কিছু করতে চাওয়া

অনেকেই একা একা অনেক কিছু করতে চায়, এটা মনে হয় খুব ভালো সিদ্ধান্ত না,আপনি একা একা কিছু করতে পারবেন না, আপনার বিভিন্ন মানুষের সহযোগিতা লাগবে, এমন না যে আপনাকে সবাইকে বেতন এর মাধ্যমে রাখতে হবে, অনেকেই আছে কাজ শিখতে চায় তাদের সুযোগ দিন, এমন কাজ আছে যেগুলা সারাদিন ধরে করার প্রয়োজন হয় না সে ক্ষেত্রে ২-৩ ঘন্টার জন্য পার্ট টাইম জবের সুযোগ দিন, সবাইকে মাসে একবার এক সাথে ডাকুন আপনার পরিকল্পনার কথা বলুন, তাদের কাছে আইডিয়া চাইতে পারেন।

ভুল কারো সাথে পার্টনারশিপ এ যাওয়া

শুধু টাকা দিবে এটা চিন্তা করে কারো সাথে পার্টনারশিপে যাওয়া ঠিক হবে না, এখানে আপনার মতে সাথে তার মতের মিল আছে কিনা, আপনি যে বিজনেস করতে চাচ্ছেন সে বিজনেস সম্পর্কে তার ভালো ধারনা আছে কিনা আরো অনেক কিছু চিন্তা করে পার্টনারশিপ এ যান, একজনের সাথে অপ্ল কিছু পরিচয় হলো, ভালো একটা আইডিয়া পেলেন আর শুরু করে দিলেন একসাথে সেটা মনে হয় ঠিক হবে না। একটা বিজনেস এ সব সময় ভালো সময় যায় না তাই যখন সময় খারাপ যাবে তখন হয়তো তার সাথে সমস্যা তৈরি হবে আপনার, তাই ভালো হয় অনেক ভালো সম্পর্ক আছে কারো সাথে, বিশ্বাস আছে, আপনার বিজনেস সম্পর্কে ধারনা আছে ইত্যাদি এরকম মানুষের সাথে কাজ করলেই ভালো হবে আপনার জন্য। সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ হলো বিজনেসটা আপনার কাছে যেমন গুরুত্বপূর্ণ তার কাছে ও সেরকম গুরুত্বপূর্ণ হতে হবে।

হতাশ হয়ে যাওয়া

আপনি দিন রাত কষ্ট করছেন, নিজের দিকে খেয়াল না করে আপনার বিজনেসকে উঠানোর চেষ্টা করছেন, অনেক স্বপ্ন আপনার মধ্যে যে আপনি সবাইকে প্রমান করবেন আপনি পারেন কিন্তু কোনভাবেই হচ্ছে না আপনি হতাশ হয়ে যাচ্ছেন, পার্টনারকে ও বলে দিলেন আপনি আর করবেন না ইত্যাদি। এটা করা যাবে না, এরকম হলে ভুল থেকে শিক্ষা নিতে হবে, এখন হয়তো চিন্তা করবেন ভুল কি সেটাই তো ধরতে পারছি না তাহলে সফল উদ্যোগতাদের জীবনী পরতে হবে, তারা কিভাবে কঠিন সময় পার করেছে, কিভাবে মোকাবেলা করেছে ইত্যাদি। দরকার হলে কিছুদিন চাপ মুক্ত থাকেন, ঘুরতে চলে যান, নিজের উপর বিশ্বাস নিয়ে আসেন যেটা অন্য কেউ এনে দিতে পারবে না, নিজেকে বুঝাতে হবে যে আমি পারবো, এখন যেরকম পারি তার থেকে ভালো ভাবে পারবো।

ভুল প্রোডাক্ট নিয়ে কাজ করা

এখানে অনেকেই একমত না হতে পারেন, তবে ভালো হয় প্রথমেই প্রোডাক্ট কিনে বিক্রির বিজনেস না করে কিছু সার্ভিস এর মাধ্যমে বিজনেস শুরু করা, তাহলে যেটা হবে আপনাকে ইনভেস্ট করতে হচ্ছে না অথবা কম ইনভেস্ট করতে হচ্ছে, ক্ষতির সম্ভবনা ও কম। অনেকেই কিন্তু প্রথমেই অনেক প্রোডাক্ট কিনছে, কিনে এনে রেখে দিচ্ছে। সেটার মার্কেটিং করছে নতুন বিজনেস তাই হয়তো সেল পাচ্ছে না তাহলে কিন্তু আর্থিক ক্ষতি আর হতাশা চলে আসতে পারে, তাই কিছু সার্ভিস ভিত্তিক বিজনেস এর মাধ্যমে শুরু করতে পারেন, এখানে আপনার টাইম ছাড়া আর কিছুই ইনভেস্ট করতে হবে না, আর এই সময়ে আপনি অনেক কিছু শিখবেন অনেক কিছু বুঝবেন,যেমন আপনি একটা ভুল করলেন সার্ভিস দিতে গিয়ে এখানে আপনি আপনার পরিকল্পনা পরিবর্তন করতে পারবেন,এখানে আপনি আর্থিক ভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছেন না, এই বিজনেস থেকে আয় করা অর্থ জমান তারপর সেখান থেকে প্রোডাক্ট কিনেন তবে প্রোডাক্ট কিনার আগে বুঝে নিবেন কোন প্রোডাক্ট এর কিরকম চাহিদা।
প্রোডাক্ট এর মাধ্যমে ও যে শুরু করা যাবে না সেটা কিন্তু না সেটা হলে অল্প করে শুরু করেন, যাদের কাছ থেকে প্রোডাক্ট আনবেন তাদের সাথে কথা বলে দেখেন প্রোডাক্ট বিক্রি না হলে তারা সেটা ফেরত নিবে কিনা অথবা অন্য কোন উপায় বের করা যায় কিনা সেটা চিন্তা করেন। আপনি এক সাথে পঞ্চাশ হাজার টাকার প্রোডাক্ট নিলেন বিক্রি হলো না সেটা কিন্তু অনেক কষ্টকর হবে আপনার জন্য।

আরিফুল ইসলাম

Comments

comments

About The Author


আমি আরিফুল ইসলাম, লেখালিখি করতে ভালো লাগে, জেনেসিস ব্লগ এ লিখি গ্রাফিক ডিজাইন, আউটসোর্সিং ইত্যাদি বিষয়ে। এক বছর ধরে ফেসবুক মার্কেটিং, ভিডিও মার্কেটিং নিয়ে পড়াশুনা করছি, বেশ ভালো ও লাগছে, চেষ্টা থাকবে যা জানবো সেগুলি নিয়ে লিখতে। e-Cab কে অনেক ধন্যবাদ আমাকে এখানে লেখার সুযোগ করে দেয়ার জন্য। আশা করি ভালো কিছু লেখা দিতে পারবো।

No Comments

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *